লন্ডনে মাশরাফিদের ঈদের নামাজ আদায়

এবং ডেস্ক : যথাযোগ্য মর্যাদায় ব্রিটেনে পালিত হয়েছে মুসলিম ধর্মাবলম্বীদের অন্যতম বড় উৎসব ঈদুল ফিতর। মঙ্গলবার লন্ডনসহ ব্রিটেনের বিভিন্ন মসজিদ ও খোলা পার্কে সমবেত হয়ে মুসলমানরা ঈদের নামাজ আদায় করেন।

মঙ্গলবার সকালে লন্ডনে ঈদের নামাজ পড়েছেন মাশরাফিরাও। লন্ডনের সেন্ট্রাল মসজিদে নামাজ পড়েন তারা। এসময় খেলোয়াড়দের সঙ্গে বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন ছিলেন। তবে সৌম্য, তামিম, লিটন ও মুস্তাফিজ হোটেলে ছিলেন।

নিরাপত্তাজনিত ঈদের নামাজ পড়তে টিম বাস ব্যবহার করতে পারেননি ক্রিকেটাররা। আইসিসির পক্ষ থেকে আগেই জানানো হয়েছিল, মানুষের ভিড়ে জাতীয় দলকে বাড়তি নিরাপত্তা দেয়া তাদের পক্ষে সম্ভব হবে না। তাই ব্যক্তিগত গাড়ি কিংবা মাইক্রোবাসে করে নামাজ পড়তে যান টাইগাররা।

নামাজ শেষে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ছবি শেয়ার করে ভক্তদের সঙ্গে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় করেন মুশফিক-সাকিবরা।

মুশফিকুর রহীম নিজের হাস্যোজ্জ্বল ছবি আপলোড করেছেন। এছাড়া সাকিব আল হাসানের স্ত্রী উম্মে শিশির আহমেদও স্বপরিবারে ছবি আপলোড করে সবাইকে ঈদের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন।

মাশরাফি বাহিনীর জন্য হোটেলে খাবার পাঠিয়েছে বাংলাদেশ হাইকমিশন। খাবারের মেন্যুতে ছিল সেমাই, ফিন্নি, মিষ্টি ও আরও কয়েক পদের উৎসবের খাবার।

ঈদের নামাজ শেষে মঙ্গলবার বিকেলে ওভালে অনুশীলনে যাওয়ার কথা টাইগারদের। মুশফিক ও মাহমুদুল্লাহ রিয়াদের স্ত্রী-সন্তানরা লন্ডনে রয়েছেন।আগে থেকেই সাকিব আর মিঠুনের পরিবারও রয়েছে। তাই ঈদের দিন সকালে সেমাই রান্না করে খাওয়ানোর কোনো সমস্যা নেই। তবে ঈদের উপহারটা কালকের জন্যই তোলা থাক। লন্ডন থেকেই এবারের ঈদে সেরা উপহার পাক ষোলো কোটির বাংলাদেশ।

ট্যাগ্স
আরো দেখুন

এই সম্মন্ধীয় সংবাদ

Leave a Reply

Close