শিক্ষার্থীদের দাবি মেনে নিল জবি প্রশাসন, অনশন প্রত্যাহার

এবং ডেস্ক : জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের (জবি) সাধারণ শিক্ষার্থীদের সাত দফা দাবি মেনে নিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। সোমবার বিশ্ববিদ্যালয়ের জনসংযোগ, তথ্য ও প্রকাশনা দপ্তর থেকে রেজিস্ট্রার প্রকৌশলী মো. ওহিদুজ্জামান স্বাক্ষরিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে এ তথ্য নিশ্চিত করা হয়।

গত ১ জুলাই থেকে সাধারণ শিক্ষার্থীরা খাবারের দাম কমানো, দ্বিতীয় ক্যাম্পাসের কাজ শুরুসহ সাত দফা দাবিতে আন্দোলন করে আসছিল। গত রোববার এ দাবিতে কয়েকজন শিক্ষার্থী আমরণ অনশন শুরু করেন।

সোমবার সন্ধ্যা ৬টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের ট্রেজারার অধ্যাপক ড. সেলিম ভূইয়া আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীদের ফলের জুস পান করিয়ে তাদের অনশন ভাঙান। এ সময় বিশ্ববিদ্যালয়র রেজিস্ট্রার প্রকৌশলী মো. ওহিদুজ্জামান, প্রক্টর ড. নুর মোহাম্মদসহ অন্যান্য সহকারী প্রক্টর উপস্থিত ছিলেন।

শিক্ষার্থীদের দাবিগুলো হলো- আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে ক্যান্টিনের ভর্তুকি বাড়িয়ে খাবারের দাম কমাতে হবে ও মান উন্নয়ন করতে হবে, এক মাসের মধ্যে বাসের ডাবল শিফট চালু করতে হবে, চার মাসের মধ্যে জকসু নির্বাচন দিতে হবে, দুই মাসের মধ্যে ছাত্রী হলের কাজ শেষ করতে হবে, শিক্ষক নিয়োগে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ৭০ শতাংশ নিয়োগ দিতে হবে এবং আবেদনের ক্ষেত্রে সিজিপিএ শর্ত শিথিল ও স্বচ্ছ নিয়োগ পরীক্ষার মাধ্যমে যোগ্যদের নিয়োগ দিতে হবে, জবির দ্বিতীয় ক্যাম্পাসের কাজ অবিলম্বে শুরু করতে হবে এবং গবেষণা খাতে শর্ত কমিয়ে বাজেট বাড়াতে হবে।

উপাচার্য অধ্যাপক ড. মীজানুর রহমান বলেন, অনশনরত শিক্ষার্থীদের দাবির বিষয়ে কর্তৃপক্ষ যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে। শিক্ষার্থীদের অনশন প্রত্যাহার করে নিয়মিত ক্লাস ও পরীক্ষায় অংশগ্রহণ এবং বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষার স্বাভাবিক পরিবেশ বিঘ্নিত হয় এমন কার্যক্রম থেকে বিরত থাকার আহ্বান জানান তিনি।

ট্যাগ্স
আরো দেখুন

এই সম্মন্ধীয় সংবাদ

Leave a Reply

Close